৬ কোটি দিয়ে গহণা কিনে পরে শুনলেন দাম মাত্র ৩০০

ভারতের জয়পুর থেকে দুই বছর আগে ৬ কোটি রুপি দিয়ে বিশেষ কিছু অলঙ্কার কেনেন মার্কিন নারী চেরিশ। পরে নিজ দেশে নিয়ে এসব অলঙ্কার দিয়ে শুরু করেন প্রদর্শনী। কিন্তু পরে জানতে পারেন এগুলো আসলে সত্যিকারের রত্ন নয়, কৃত্রিম। আর এসব জুয়েলারির

বাজারদর মাত্র ৩০০ রুপি ভারতীয় সংবাদমাধ্যম ইন্ডিয়া টুডে বলছে, জয়পুর শহরের গোপালজি কা রাস্তা এলাকার এক দোকানের বাবা ও ছেলে ওই নারীর সঙ্গে এই প্রতারণা করেন। এসব অলঙ্কারের সত্যতা নিশ্চিত করতে হলমার্ক সার্টিফিকেটও দেখানো হয় হয় ওই

নারীকে প্রতারিত হওয়ার পর আবারও ভারতে আসেন ওই নারী। এসে রামা রেডিয়াম নামের ওই দোকানে খোঁজ করেন। দোকানের মালিক গৌরভ সোনির কাছে এই অভিযোগ দেন তিনি। আশপাশের দোকান থেকে যাচাই করে দেখেন অলঙ্কারগুলো বানানো। দাম মাত্র ৩০০ রুপি হতে পারে পরে এই ঘটনা মার্কিন দূতাবাসকে জানান

চেরিশ। এরপর গত ১৮ মে দোকানদার রাজেন্দ্র সোনি ও ছেলে গৌরভ সোনির বিরুদ্ধে মামলা করা হয় পুলিশ বলছে, অভিযোগকারীরাও মামলা করেছেন ওই নারীর বিরুদ্ধে। তাদের অভিযোগ, ওই নারী এগুলো নিয়ে পালিয়ে গিয়েছিলেন। কিন্তু সিসিটিভি দেখে জানা যায়, এই অভিযোগ মিথ্যা। একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে